সোমবার, ২০ মে ২০২৪

বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল সাত্তার আর আমাদের মাঝে নেই

মোঃশাহাদাত হোসেন
স্টাফ রিপোর্টার

১৯৭১ সালে জাতির পিতার ডাকে সাড়া দিয়ে আব্দুস সাত্তার পিতা মৃত্যু জালাল মিয়া মাতা মৃত্যু সিদ্দিকের নেছা। উপজেলা ও থানা নোয়াখালী সদর জেলা নোয়াখালী বর্তমান কেরানীগঞ্জ উপজেলা খোলা মোড়া তিনি ২ নং সেক্টরে কমান্ডার মেজর খালেদ মোশারফ এর অধীনে পাক হানাদারের বিরুদ্ধে সম্মুখ যুদ্ধ করেন থানা কেরানীগঞ্জ ঢাকা। কিছুদিন পরে তাকে প্রশিক্ষণের জন্য ভারতে পাঠানো হয়। প্রশিক্ষণ শেষে তিনি আবার ফিরে এসে মেজর হায়দারের অধীনে পাক হানাদারের বিরুদ্ধে সরাসরি যুদ্ধে অংশগ্রহণ করেন নোয়াখালী সহ বিভিন্ন জায়গায় মুক্তিযুদ্ধ করেন। এবং তিনি সত্যিকার অর্থে একজন দেশ প্রেমিক মুক্তিযোদ্ধা হিসাবে স্বীকৃতি লাভ করেন। আজ ২৯ এপ্রিল খোলামোড়াকেরানীগঞ্জ ঢাকা সকাল আটার দিকে সবার সব মায়া ত্যাগ করে চিরতরে চলে যান। ওনার সহধর্মিনী অনেক আগে মারা যান তিনি এক ছেলে ও এক মেয়ে শো নাতি এবং তার আত্মীয় বন্ধু-বান্ধব ও সহযোদ্ধারেখে যান। মৃত্যু কালে তার বয়স হয়েছিল ৮০ বছর সত্যিকার অর্থে এই বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল সাত্তার আমার ভাইয়েরা তার ডিজিটাল মুক্তিযোদ্ধার কার্ড দেওয়া হইল। আজ আসর বাদ পাঁচ দানা খোলামোড়ামসজিদে দাফন শেষে কেরানীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসারের উপস্থিতে রাষ্ট্রীয় মর্যাদা দিয়ে তাকে পাঁচ দানা কবরস্থানে দাফন করা হবে।

থেকে আরও পড়ুন

থেকে আরও পড়ুন