রবিবার, ৩ মার্চ ২০২৪

পঞ্চগড় -১ আসন থেকে সংরক্ষিত নারী সংসদ সদস্য হিসেবে মোছাঃ রুনা লাইলাকে নির্বাচিত মনোনীত করার দাবী উঠেছে

পঞ্চগড় জেলা প্রতিনিধি খাদেমুল ইসলাম

 

 

পঞ্চগড় -১ আসন থেকে সংরক্ষিত নারী সংসদ সদস্য হিসেবে পঞ্চগড় জেলা সাংগঠনিক সম্পাদক মোছাঃ রুনা লাইলাকে নির্বাচিত মনোনীত করার দাবী উঠেছে।

দীর্ঘদিন ধরে সংরক্ষিত সংসদ সদস্য পদ বঞ্চিত আছে পঞ্চগড়।রাজনৈতিক পরিচয় মোছাঃ রুনা লাইলা বিএ অনার্স পাস (৩৫) পঞ্চগড় জেলা কৃষকলীগের

সাংগঠনিক সম্পাদক পেশা তিনি একজন
সমাজ সেবক

 

তার পিতা প্রয়াত নেতা বীরমুক্তিযোদ্ধা আঃ জব্বার ৫২ সালে ভাষা আন্দোলন থেকে শুরু করেন ১৯৬৯ এর গন আন্দোলন ও ১৯৭০ এর সাধারন নির্বাচনে সক্রিয় ভাবে অংশ গ্রহন। তেতুলিয়া উপজেলা আঃলীগের প্রতিষ্ঠাতা সাবেক সাধারন সম্পাদক।জাতীর পিতা বঙ্গবন্ধু হত্যার পর কারা নির্যাতিত এ জেলার
নেতা।

 

৭১ এর মুক্তিযুদ্ধে মুক্তাঞ্চল তেতুলিয়া মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক।তেতুলিয়া থানা সেচ্ছাসেবক বাহিনীর প্রধান ওস্বাধীনতার সংগ্রাম পরিষদের আহব্বায়ক,যুদ্ধে কালীন সময়ে তার নিজস্ব বাসভবনটি কন্টোলরুম হিসেবে ব্যবহার এবং তার ব্যক্তিগত টেলিফোন নম্বর মুক্তিযুদ্ধের বিষয়ে দেশ বিদেশীর যোগাযোগ মাধ্যমে হিসেবে ব্যবহার করতেন।মোছাঃ রুনা লাইলার রাজনৈতিক পরিচয়
সাধারন সম্পাদক মুক্তিযোদ্ধা সন্তান ও প্রজন্ম কেন্দ্রীয় কমান্ড কাউন্সিল,

 

পঞ্চগড় জেলা কৃষকলীগ সাংগঠনিক সম্পাদক,
তেতুলিয়া সরকারী কলেজ সাবেক নারী ছাত্রী
বিষয়ক সম্পাদিকা

গত বছরে ২০১৪ ও ২০১৮ সালে আওয়ামী লীগ সরকার গঠন করলেও পঞ্চগড় থেকে সংরক্ষিত আসনের সংসদ সদস্য করা হয়নি। ২০১৪ সালে ঠাকুরগাঁও থেকে এবং ২০১৮ সালে দিনাজপুর থেকে সংরক্ষিত আসনের সংসদ সদস্য নির্বাচিত করা হয়। সংগত কারণে এবার পঞ্চগড় থেকে সংরক্ষিত আসনের সংসদ সদস্য নির্বাচনের দাবী উঠেছে। ২০০৮ সালে নির্বাচিত সংরক্ষিত সংসদ সদস্য ফরিদা আকতার হীরা ও ২০১৪ সালে সেলিনা জাহান লিটা পঞ্চগড়ের উন্নয়নে কাজ করেছিলেন। পঞ্চগড়ের মানুষ এদের চিনেন জানেন। তবে ২০১৮ সালে নির্বাচিত সংরক্ষিত সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট জাকিয়া তাবাস্সুম জুঁইকে নির্বাচিত করা হয়। তিনি গত পাঁচ বছরে এক/দুইবার পঞ্চগড়ের আসেন।

পঞ্চগড়ের মানুষ তাঁকে সেভাবে দেখেনি এবং জানেও না।
পঞ্চগড়ের বিভিন্ন স্তরের নেতাকর্মী ও সমর্থকদের সাথে কথা বলে জানা গেছে, এবার তারা পঞ্চগড় থেকে সংরক্ষিত আসনের সংসদ সদস্য নির্বাচিত করার দাবি জানিয়েছেন। তাদের দাবি দীর্ঘদিনের রাজনীতিতে সক্রিয় মোছাঃ রুনা লাইলাকে
এবার পঞ্চগড় থেকে সংরক্ষিত সংসদ সদস্য নির্বাচিত করার দাবি তুলেছে।তেতুলিয়ায় সরকারী ডিগ্রী কলেজের

 

সাবেক ছাত্রী বিষয়ক সম্পাদকের মাধ্যমে
রাজনীতিতে সক্রিয়। পঞ্চগড়ের প্রিয় মুখ। ৩৫ বছর বয়সী এই নারী সংরক্ষিত নারী আসন (পঞ্চগড়, ঠাকুরগাঁও এবং দিনাজপুর) এ সরকার দলীয় সংসদ সদস্য হিসেবে মনোয়ন চান।তেতুলিয়ায় সরকারী কলেজের ছাত্রী হিসেবে ছাত্রলীগের রাজনীতির সাথে জড়িত হন।

 

পঞ্চগড় জেলা কৃষকলীগের সাংগঠনিক সম্পাদকের দায়িত্ব পান

জেলা সাংগঠনিক সম্পাদক
দায়িত্বে থেকে তিনি পঞ্চগড়ে আওয়ামী লীগকে একটি শক্তিশালী সংগঠন হিসেবে গড়ে তুলতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেন।বর্তমানে তিনি জেলা কৃষকলীগের সাংগঠনিক সম্পাদকের
পাশাপাশি সব উপজেলায়
দক্ষতার সাথে দায়িত্ব পালন করছেন।

তিনি একজন সদালাপী, বিনয়ী, সৎ দক্ষ নারী নেত্রী হিসেবে সর্বমহলে ব্যাপক পরিচিত এই নারীকে সংরক্ষিত আসনের জন্য সংসদ সদস্য নির্বাচিত করার দাবি জানিয়েছেন দলীয় নেতাকর্মী সমর্থকসহ বিভিন্ন স্তরের মানুষ।

 

মোছা : রুনা লাইলা তিনি বলেন, আমি আওয়ামী মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সন্তান

 

ছাত্র জীবন থেকেই রাজনীতির সাথে জড়িত। সকল রাজনৈতিক প্রোগ্রামে আমি সক্রিয়ভাবে অংশগ্রহণ করি। আমার বিশ্বাষ মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা আমাকে সংরক্ষিত নারী আসন-১ এ আমাকে মনোয়ন দেবেন। ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়তে কাজ করেছি এবার প্রধামন্ত্রী ঘোষিত ২০৪১ সালের মধ্যে স্মার্ট বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠায় অগ্রণী ভূমিকা রাখতে চাই

থেকে আরও পড়ুন

থেকে আরও পড়ুন