ঢাকা সোমবার, ০২ অক্টোবর ২০২৩
১৭ আশ্বিন ১৪৩০ বাংলা
শিরোনাম:
মধুপুরে চলাচলের রাস্তা বন্ধ করে দেওয়ায়, অবরুদ্ধ ৬০টি পরিবার, গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করেছে টুঙ্গিপাড়া প্রেসক্লাব, সিনিয়র সাংবাদিক আসিফ কাজল ভাইয়ের জন্মদিন, যে মাটিতে জীবনের শৈশব থেকে কৈশর কেটেছে, সে মাটির গন্ধ কখনো ভোলা যায় না, শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন অ্যাডভোকেট জানে আলম মিনা, চিন দেশে উইঘর মুসলিমদের নির্যাতন ও হত্যার প্রতিবাদে পঞ্চগড় সচেতন নাগরিকরা সংগঠনের ব্যানারে বিক্ষোভ সমাবেশ মানব বন্ধন অনুষ্টিত, ডায়রিয়ায় আক্রান্ত হয়ে শিশুর মৃত্যু, জুড়ী থানায় ওপেন হাউজ ডে অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়েছে  বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে নবনিযুক্ত ডিএমপি কমিশনারের শ্রদ্ধা, ঘাটাইল উপজেলায় আন্তর্জাতিক প্রবীণ দিবস উদযাপন,

পঞ্চগড় কৃত্রিম সংকট সৃষ্টির অযু হাতে বেড়েছে সিগারেট,

পঞ্চগড় জেলা প্রতিনিধি:
  • আপডেট সময় : ০৯:৩৯:৪৮ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১৯ অগাস্ট ২০২৩ ৪৭ বার পড়া হয়েছে

পঞ্চগড় প্রতিনিধি-

 

 

পঞ্চগড়ের তেতুলিয়ায় হাট বাজারে গুরুত্বপুূণ স্থানে তেতুলিয়া চৌরাস্তা, রনচন্ডি,তিরনই হাট,বাংলাবান্ধা, শালবাহান, বুড়াবুড়ি,ভজনপুর দেবনগড়সহ বিভিন্ন হাট বাজারে অবৈধ ভাবে
সিন্ডিকেট করে পাইকারী বাজারে
এক শ্রেণির অসাধু ব্যবসায়ী কোম্পানি
ডার্বি ,ব্র্যাক ডায়মন্ড, শেখ,সানমুন, নেভি,
,এশিয়া,মেরিস শেখ সিগারেট
কৃত্রিম সংকট তৈরি বেশি দামে বাজারে বিক্রি করেছে। যে কোনো ধরনের কৃত্রিম সংকট সৃষ্টির অযু হাতে বেড়েছে সিগারেটের মূল্য,
বিপাকে শত শত খুচরা পান বিড়ি ও মুদি দোকানদারেরা ।সিগারেট কোম্পানিগুলো বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে হাট বাজারে কালোবাজারী করে লক্ষ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নিচ্ছেন।
খুচরা পাইকারী বাজারে সিগারেটের মূল্য বৃদ্ধি করেছে অবৈধ ভাবে কৌশলে তারা রশিদ দিচ্ছেন না।
সিগারেট কোম্পানি
বিভিন্ন অজুহাতে বাড়িয়ে দিয়েছেন সিগারেটের মূল্য,

তেতুলিয়ায় ঘুরে দেখা যায় প্রত্যেকটা দোকানেই বিভিন্ন সিগারেটের মূল্য বেশি নেয়া হচ্ছে একসালা বেনসন সিগারেটের মূল্য ১৩ টাকা বর্তমানে নেয়া হচ্ছে ১৪/১৫. টাকা । গ্লোলিফ একসলা ১০ টাকা ছিল বর্তমানে ১২ টাকা স্টার ৭টাকা বর্তমানে ৮ টাকা,
ডার্বি বর্তমানে ৫টাকা সিগারেটের মূল্য বৃদ্ধি কারণ জানতে চাইলে দোকানদাররা জানান সিগারেটের মূল্য কোম্পানি থেকে বাড়েনি আমরা গাড়ি থেকে নিলে আগের মূল্যেই পাই কিন্তু গাড়ি থেকে নেওয়ার আগেই সিগারেট কোম্পানিগুলো সাথে সিন্ডিকেটের মাধ্যমে বিভিন্ন বড় মুদি দোকানদারের এই সিগারেটগুলো আগেই নিয়ে গুদামজাত করে রেখেছেন । আমরা তাদের কাছ থেকে সিগারেট নিতে গেলে প্রত্যেক কার্টুনে দিতে হয় দুই থেকে ২৫০ টাকা বেশি মূল্যে ।

এ ব্যাপারে তেতুলিয়ার এলাকার মুদি দোকানদার খোকন , ও আজিজুল
জানান, বেনস সিগারেট এক কাটুন আগে ছিল ২৪০০ টাকা বর্তমানে ২৭০০ গ্লোলিফ ছিল ১৮২০ বর্তমানে ২০৫০, স্টার আগে ছিল১২৬৫, বর্তমানে ১৪০০, নেভি ১২৫৫ বর্তমানে ১৩৫০, ডার্বি ৭০০ বর্তমানে ৮০০, প্রত্যেক কাটুনের মূল্যের আগের চেয়ে প্রায় ২০০/২৫০ টাকা বেশি আমরা কি করবো বড় বড় দোকানদাররা গাড়ি আসামাত্র সকল সিগারেট গাড়ি থেকে ক্রয় করে গুদামজাত করে বেশি মূল্য নিচ্ছে, সে কারণে আমাদেরও বেশি রাখতে হয় । যে সমস্ত দোকানে মূল্য বেশি নিচ্ছে এবং বাসায় এবং বিভিন্ন জায়গায় গোডাউন করা আছে, তাদের
প্রায় ৭ লক্ষ টাকার সিগারেট গুদামজাত করে বিভিন্ন অজুহাতে অধিক মূল্য বিক্রয় করেছেন,বাজারের এ ব্যাপারে পঞ্চগড় ডার্বি
সিগারেট কোম্পানীর হোল সেলার মোঃ একবাল হোসেন সাথে কথা বললে তারা বলেন কোম্পানি কোন সিগারেটের মূল্য বৃদ্ধি করেননি। আমরা কোথাও কোন দাম বেশি নেই না যদি কেউ এ ধরনের কাজ করে তাহলে কোম্পানি তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করব।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

ট্যাগস :

পঞ্চগড় কৃত্রিম সংকট সৃষ্টির অযু হাতে বেড়েছে সিগারেট,

আপডেট সময় : ০৯:৩৯:৪৮ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১৯ অগাস্ট ২০২৩

পঞ্চগড় প্রতিনিধি-

 

 

পঞ্চগড়ের তেতুলিয়ায় হাট বাজারে গুরুত্বপুূণ স্থানে তেতুলিয়া চৌরাস্তা, রনচন্ডি,তিরনই হাট,বাংলাবান্ধা, শালবাহান, বুড়াবুড়ি,ভজনপুর দেবনগড়সহ বিভিন্ন হাট বাজারে অবৈধ ভাবে
সিন্ডিকেট করে পাইকারী বাজারে
এক শ্রেণির অসাধু ব্যবসায়ী কোম্পানি
ডার্বি ,ব্র্যাক ডায়মন্ড, শেখ,সানমুন, নেভি,
,এশিয়া,মেরিস শেখ সিগারেট
কৃত্রিম সংকট তৈরি বেশি দামে বাজারে বিক্রি করেছে। যে কোনো ধরনের কৃত্রিম সংকট সৃষ্টির অযু হাতে বেড়েছে সিগারেটের মূল্য,
বিপাকে শত শত খুচরা পান বিড়ি ও মুদি দোকানদারেরা ।সিগারেট কোম্পানিগুলো বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে হাট বাজারে কালোবাজারী করে লক্ষ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নিচ্ছেন।
খুচরা পাইকারী বাজারে সিগারেটের মূল্য বৃদ্ধি করেছে অবৈধ ভাবে কৌশলে তারা রশিদ দিচ্ছেন না।
সিগারেট কোম্পানি
বিভিন্ন অজুহাতে বাড়িয়ে দিয়েছেন সিগারেটের মূল্য,

তেতুলিয়ায় ঘুরে দেখা যায় প্রত্যেকটা দোকানেই বিভিন্ন সিগারেটের মূল্য বেশি নেয়া হচ্ছে একসালা বেনসন সিগারেটের মূল্য ১৩ টাকা বর্তমানে নেয়া হচ্ছে ১৪/১৫. টাকা । গ্লোলিফ একসলা ১০ টাকা ছিল বর্তমানে ১২ টাকা স্টার ৭টাকা বর্তমানে ৮ টাকা,
ডার্বি বর্তমানে ৫টাকা সিগারেটের মূল্য বৃদ্ধি কারণ জানতে চাইলে দোকানদাররা জানান সিগারেটের মূল্য কোম্পানি থেকে বাড়েনি আমরা গাড়ি থেকে নিলে আগের মূল্যেই পাই কিন্তু গাড়ি থেকে নেওয়ার আগেই সিগারেট কোম্পানিগুলো সাথে সিন্ডিকেটের মাধ্যমে বিভিন্ন বড় মুদি দোকানদারের এই সিগারেটগুলো আগেই নিয়ে গুদামজাত করে রেখেছেন । আমরা তাদের কাছ থেকে সিগারেট নিতে গেলে প্রত্যেক কার্টুনে দিতে হয় দুই থেকে ২৫০ টাকা বেশি মূল্যে ।

এ ব্যাপারে তেতুলিয়ার এলাকার মুদি দোকানদার খোকন , ও আজিজুল
জানান, বেনস সিগারেট এক কাটুন আগে ছিল ২৪০০ টাকা বর্তমানে ২৭০০ গ্লোলিফ ছিল ১৮২০ বর্তমানে ২০৫০, স্টার আগে ছিল১২৬৫, বর্তমানে ১৪০০, নেভি ১২৫৫ বর্তমানে ১৩৫০, ডার্বি ৭০০ বর্তমানে ৮০০, প্রত্যেক কাটুনের মূল্যের আগের চেয়ে প্রায় ২০০/২৫০ টাকা বেশি আমরা কি করবো বড় বড় দোকানদাররা গাড়ি আসামাত্র সকল সিগারেট গাড়ি থেকে ক্রয় করে গুদামজাত করে বেশি মূল্য নিচ্ছে, সে কারণে আমাদেরও বেশি রাখতে হয় । যে সমস্ত দোকানে মূল্য বেশি নিচ্ছে এবং বাসায় এবং বিভিন্ন জায়গায় গোডাউন করা আছে, তাদের
প্রায় ৭ লক্ষ টাকার সিগারেট গুদামজাত করে বিভিন্ন অজুহাতে অধিক মূল্য বিক্রয় করেছেন,বাজারের এ ব্যাপারে পঞ্চগড় ডার্বি
সিগারেট কোম্পানীর হোল সেলার মোঃ একবাল হোসেন সাথে কথা বললে তারা বলেন কোম্পানি কোন সিগারেটের মূল্য বৃদ্ধি করেননি। আমরা কোথাও কোন দাম বেশি নেই না যদি কেউ এ ধরনের কাজ করে তাহলে কোম্পানি তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করব।